September 26, 2018
  • ইসিকে গণসংহতি আন্দোলনের আইনি নোটিশ
  • লিটন-সাকিবের বিদায়ে চাপে বাংলাদেশ
  • বাংলাদেশে ঢোকার অপেক্ষায় আরও ৫ লাখ রোহিঙ্গা
  • মা হলেন অভিনেত্রী শায়লা সাবি
  • ঢাবি অধিভুক্ত সাত কলেজে ভর্তি বিজ্ঞপ্তি
  • আইসিসি নিজেই মিয়ানমারের বিচারে সক্ষম: জাতিসংঘ মহাসচিব
  • প্রধান বিচারপতিকে বিতাড়িত করে শেখ হাসিনা বিশ্ব দরবারে কলঙ্কিত: রিজভী আহমেদ
  • মংলা-বুড়িমারী বন্দরে শতভাগ দুর্নীতি: টিআইবি
  • বাংলাদেশ থেকে অস্কারে যাচ্ছে ‘ডুব’
  • গল্প শুনবেন নুসরাত ফারিয়া

ইসলাম একটি মহান ধর্ম, রামাদ্বান মাসটিও পবিত্র : ট্রাম্প


বার্তা৭১ ডটকমঃ বিশ্বের সব মুসলমানদের রামাদ্বান মোবারকের শুভেচ্ছা জানিয়ে প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নেবার পর এই প্রথম হোয়াইট হাউসে ইফতারের আয়োজন করলেন যুক্তরাষ্ট্র প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

বুধবার হোয়াইট হাউসের স্টেট ডাইনিং রুমে আয়োজিত ইফতারে দেয়া বক্তব্যে ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্র ও তার বাইরের সব মুসলমানদের মধ্যে শান্তি আর একতার বার্তার কথাই বললেন।

ইসলাম একটি মহান ধর্ম উল্লেখ করে ট্রাম্প তাঁর বক্তব্যে বলেন, আজকে আমরা সবাই এখানে এক হয়েছি পৃথিবীর অন্যতম একটি মহান ধর্ম ইসলামের পবিত্র রীতিকে পালন করার জন্য। ইসলামে বিশ্বাসীরা পবিত্র রামাদ্বান মাস জুড়ে সারাদিন উপবাস আর পর ইফতারের আয়োজন করেন আর এর মাধ্যমে তাদের আত্মিক সমৃদ্ধিও ঘটে।

ইফতার শান্তি, পরিশুদ্ধতা আর ভালোবাসার বার্তা বয়ে নিয়ে আসে উল্লেখ করে যুক্তরাষ্ট্র প্রেসিডেন্ট আরো বলেন, ইফতারে পরিবার আর বন্ধু সদস্যরা সবাই এক হয়ে বসে যা বয়ে নিয়ে আসে সীমাহিন শান্তি, পরিশুদ্ধতা আর ভালোবাসার বার্তা। এ ভালোবাসা যেনো অতুলনীয়।

তিনি বলেন, এর মাধ্যমে আমরা সর্বোচ্চ আদর্শকে নিজেদের মধ্যে লালন করি। আর যে করুণধারায় আমরা সিক্ত হই তাঁর কৃতজ্ঞতা প্রকাশের এটাই সময়।

ইফতার অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অধিকাং মুসলিম দেশের রাষ্ট্রদূতরা। ট্রাম্প তাদেরকে উষ্ণ অভ্যর্থনা জানিয়ে বলেন, আপনাদের ইফতারে উপস্থিত আমাদের সম্মানিত করেছে। তাদেরকে ভালো বন্ধু আখ্যা দিয়ে এবং চিরায়ত ইসলামী সংস্কৃতি অনুকরণ করে ট্রাম্প বলেন, আপনাদের প্রত্যেককে এবং বিশ্বের সব মুসলিমদের জানাচ্ছি- রামাদ্বান মোবারক!

ইফতারে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স এবং ট্রাম্প জামাতা জারড কুশনারসহ অন্যান্য উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ।

একতার মাধ্যমেই ভবিষ্যত নিরাপত্তা অর্জন সম্ভব উল্লেখ করে ট্রাম্প আরো বলেন, শুধুমাত্র একতাবদ্ধ হয়ে কাজ করলেই আমরা ভভিষ্যত নিরাপত্তা আর সমৃদ্ধি অর্জন করতে পারি। আর সে কারণেই আমি আমার প্রথম বিদেশ সফর শুরু করেছিলাম মুসলমানদের প্রাণকেন্দ্র সৌদি আরব সফরের মাধ্যমে। সেখানে ৫০ দেশের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে যোগ দিয়েছিলাম , যেটা স্মরণে রাখার মতো।

তিনি বলেন, বিগত বছরগুলোতে আমাদের মধ্যে যে বন্ধুত্ব আর আন্তরিকতা ছিলো সময়ের ব্যবধানে তা আরো গাঢ় হয়েছে।

ট্রাম্প বলেন, আমাদের বন্ধুত্ব অনেক বেশি বেড়েছে। ওভাল অফিসে অনেক সভায় আমরা বসেছি। আর তাতে যে সাফল্য এসেছে, তা উল্লেখ করার মতো সাফল্য।

রামাদ্বান এর মহান তাৎপর্যকে সবার মধ্যে লালন করার আহবান জানিয়ে যুক্তরাষ্ট্র প্রেসিডেন্ট বলেন, আসুন আমরা শান্তিু ও ন্যায়ের জন্য প্রার্থনা করি। আর এ মহান অনুভূতি নিজেদের মধ্যে লালন করে একটি উজ্জ্বল ও সমৃদ্ধ ভবিষ্যত গড়তে আসুন একসঙ্গে কাজ করি প্রভুর দেখানো পথে।

বিভাগ - : আন্তর্জাতিক

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য দিন