May 22, 2018
  • কক্ষপথের নিজস্ব অবস্থানে পৌঁছেছে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১
  • মাদক নির্মূলে বন্দুকের ব্যবহারে উদ্বিগ্ন সুলতানা কামাল
  • 'বাংলাদেশে ৭০ লাখ মাদকসেবী, ফিলিপিনের চেয়েও বেশি'
  • রোহিঙ্গা ক্যাম্পে রিফাতদের খোঁজ নিলেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া
  • সৌদি আরবে অভ্যুত্থানের ডাক দিয়েছেন যুবরাজ খালেদ
  • ইরানের ওপর কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপের ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্রের
  • ক্ষমতার অপব্যবহারের দায়ে দুদকের ২ কর্মকর্তা বরখাস্ত
  • প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য ভোটারদের সাথে শ্রেষ্ঠ তামাশা : রিজভী
  • ৩৪০ দিনের চাকরিতে ২৫০ দিন ক্যাম্পাসে অনুপস্থিত রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি!
  • ৩ মামলায় খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি মঙ্গলবার

কোটা সংস্কার আন্দোলন ঠেকানোর ডাক দিলেন রাবি ভিসি


বার্তা৭১ ডটকমঃ কোটা সংস্কার আন্দোলন ঠেকানোর ডাক দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহান।

শনিবার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজী নজরুল ইসলাম মিলনায়তনে মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের স্কলারশিপ প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এ ডাক দেন।

কোটা আন্দোলন ঠেকাতে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে রাবি ভিসি বলেন, মিথ্যা কথা ফেসবুকে দিয়ে মানুষ হত্যা করানো হচ্ছে। ধর্মীয় উন্মাদনা সৃষ্টি করা হচ্ছে। মুক্তিযোদ্ধারা কি বেঁচে নেই এখন আর? এই মিথ্যার বিরুদ্ধে কি প্রতিরোধ করতে পারেন না?

মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য, প্রতিবন্ধীদের জন্য কোটা ছিল, সেই কোটার বিরুদ্ধে আন্দোলন করে কারা? আপনারা মুক্তিযুদ্ধের সন্তানেরা সেই আন্দোলন প্রতিরোধ করতে পারেন না?

রাবি ভিসি বলেন, দরকার ছিল দেশ স্বাধীনের পর মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা না করে রাজাকারদের তালিকা করা। কারণ আজ মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা করতে গিয়ে কত অমুক্তিযোদ্ধার নাম চলে আসায় আসল মুক্তিযোদ্ধারা কাতারেই আর থাকলো না। তাদের অনেকেই ভিক্ষা করে, রিকশা চালিয়ে জীবনযাপন করতে দেখেছি। আমাদের বেঁচে থাকার চেয়ে না থাকাই উচিত। এটা আমার জন্য কষ্টের।

রাজশাহীতে নিযুক্ত ভারতের সহকারী হাইকমিশনার অভিজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের সভাপতিত্বে ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক রুহুল আমিন প্রামাণিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী-২ আসনের এমপি ফজলে হোসেন বাদশাহ।কোটা সংস্কার আন্দোলন ঠেকানোর ডাক দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহান।

শনিবার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজী নজরুল ইসলাম মিলনায়তনে মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের স্কলারশিপ প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এ ডাক দেন।

কোটা আন্দোলন ঠেকাতে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে রাবি ভিসি বলেন, মিথ্যা কথা ফেসবুকে দিয়ে মানুষ হত্যা করানো হচ্ছে। ধর্মীয় উন্মাদনা সৃষ্টি করা হচ্ছে। মুক্তিযোদ্ধারা কি বেঁচে নেই এখন আর? এই মিথ্যার বিরুদ্ধে কি প্রতিরোধ করতে পারেন না?

মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য, প্রতিবন্ধীদের জন্য কোটা ছিল, সেই কোটার বিরুদ্ধে আন্দোলন করে কারা? আপনারা মুক্তিযুদ্ধের সন্তানেরা সেই আন্দোলন প্রতিরোধ করতে পারেন না?

রাবি ভিসি বলেন, দরকার ছিল দেশ স্বাধীনের পর মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা না করে রাজাকারদের তালিকা করা। কারণ আজ মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা করতে গিয়ে কত অমুক্তিযোদ্ধার নাম চলে আসায় আসল মুক্তিযোদ্ধারা কাতারেই আর থাকলো না। তাদের অনেকেই ভিক্ষা করে, রিকশা চালিয়ে জীবনযাপন করতে দেখেছি। আমাদের বেঁচে থাকার চেয়ে না থাকাই উচিত। এটা আমার জন্য কষ্টের।

রাজশাহীতে নিযুক্ত ভারতের সহকারী হাইকমিশনার অভিজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের সভাপতিত্বে ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক রুহুল আমিন প্রামাণিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী-২ আসনের এমপি ফজলে হোসেন বাদশাহ।কোটা সংস্কার আন্দোলন ঠেকানোর ডাক দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহান।

শনিবার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজী নজরুল ইসলাম মিলনায়তনে মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের স্কলারশিপ প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এ ডাক দেন।

কোটা আন্দোলন ঠেকাতে মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে রাবি ভিসি বলেন, মিথ্যা কথা ফেসবুকে দিয়ে মানুষ হত্যা করানো হচ্ছে। ধর্মীয় উন্মাদনা সৃষ্টি করা হচ্ছে। মুক্তিযোদ্ধারা কি বেঁচে নেই এখন আর? এই মিথ্যার বিরুদ্ধে কি প্রতিরোধ করতে পারেন না?

মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের জন্য, প্রতিবন্ধীদের জন্য কোটা ছিল, সেই কোটার বিরুদ্ধে আন্দোলন করে কারা? আপনারা মুক্তিযুদ্ধের সন্তানেরা সেই আন্দোলন প্রতিরোধ করতে পারেন না?

রাবি ভিসি বলেন, দরকার ছিল দেশ স্বাধীনের পর মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা না করে রাজাকারদের তালিকা করা। কারণ আজ মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা করতে গিয়ে কত অমুক্তিযোদ্ধার নাম চলে আসায় আসল মুক্তিযোদ্ধারা কাতারেই আর থাকলো না। তাদের অনেকেই ভিক্ষা করে, রিকশা চালিয়ে জীবনযাপন করতে দেখেছি। আমাদের বেঁচে থাকার চেয়ে না থাকাই উচিত। এটা আমার জন্য কষ্টের।

রাজশাহীতে নিযুক্ত ভারতের সহকারী হাইকমিশনার অভিজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের সভাপতিত্বে ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক রুহুল আমিন প্রামাণিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টির সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী-২ আসনের এমপি ফজলে হোসেন বাদশাহ।

বিভাগ - : শিক্ষাঙ্গন

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য দিন